Bank Loan নিয়ে রিজার্ভ ব্যাংকের কড়া নিয়ম। গ্রাহকরা টাকা ফেরত পাবেন! সঠিক নিয়ম জেনে নিন।

এখন আর একজনের রোজগারের টাকায় ঘর চালানো সম্ভব হচ্ছে না। এই জন্য Bank Loan বা একাধিক ধরনের ব্যাংক ঋণ বা ধার নিতে হচ্ছে। দরকার পড়েছে Credit Card ও Bajaj Finserve এর মতো ফাইনান্স এর। আর এই সুযোগে কিছু অসাধু প্রতিষ্ঠানের জন্য Bank Loan Interest নিয়ে অনেক ধরণের সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে গ্রাহকদের। আর সেই জন্য নিয়ম বেঁধে দিলো ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাংক তথা RBI.

Advertisement

RBI Strict Rules On Bank Loan Interest Rate.

জরুরী প্রয়োজনে টাকার দরকার? ব্যাংক থেকে লোন নেবেন? কিন্তু ভাবছেন যে ব্যাংক আদৌ লোন দেবে কিনা? আর এই নিয়ে চিন্তা করতে হবে না। এবার থেকে ব্যাংকে গেলেই মিলবে লোন। ব্যাংক লোনের কিস্তি নিয়ে কার্যত থাকছে না আর কোন কড়াকড়ি। লোন (Bank Loan) নিয়ে ব্যাংক গুলোর বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নিয়েছে RBI. আসলে গ্রাহকদের অভিযোগের ভিত্তিতেই এই কাজ করেছে রিজার্ভ ব্যাংক।

Advertisement

অনেক ব্যাংকই নাকি লোনের ক্ষেত্রে নানা ভাবে ঠকাচ্ছিল ঋণগ্রহীতাদের, এমনটা ছিল অভিযোগ। যেমন কোথাও লোন পাওয়ার আগেই শুরু হয়ে যাচ্ছিল Bank Loan Interest গোনা, আবার কোথাও প্রয়োজনের চেয়ে বেশি হারে সুদ নিচ্ছিল ব্যাংক, এই রকম আরো অনেক কিছু। তাই এই সব শুনে ব্যাংক গুলির বিরুদ্ধে শাস্তি মূলক পদক্ষেপ নিল RBI. কোনো ব্যাংক আর গ্রাহকদের লোন নিয়ে ঠকাতে পারবেনা।

ফলে গ্রাহকরা সহজেই লোন পেয়ে যাবেন এরপর থেকে। আর্থিক লেনদেন স্বচ্ছ ও নির্ভুল রেখে সকল মানুষকে সমান পরিষেবা দেওয়াই রিজার্ভ ব্যাংকের উদ্দেশ্য। এই জন্যেই সম্প্রতি লোন (Bank Loan Interest) নিয়ে তারা ব্যাংক গুলিকে দিয়েছেন বিশেষ সতর্কবার্তা। RBI Rules তথা রিজার্ভ ব্যাংকের নতুন নিয়ম অনুযায়ী, Bank Loan দেওয়ার ক্ষেত্রে ব্যাংক গুলি নিজের সিদ্ধান্ত মতো সুদের হার (Bank Loan Interest Rate) তৈরি করতে পারে। কিন্তু কেন্দ্রীয় ব্যাংক দেখেছে যে কিছু ব্যাংক এই নিয়মের অপব্যবহার করছে। গ্রাহকদের ঠকিয়ে তারা প্রয়োজনের চেয়ে অনেকটা বেশি Bank Loan Interest নিয়েছে তাদের থেকে। যার কারনে লোন শোধ দিতে গিয়ে নাজেহাল হতে হয়েছে সেই সব গ্রাহককে।

গ্রাহকরা সেই অভিযোগ জানিয়েছেন RBI এর কাছে। তার ভিত্তিতেই ব্যাংক গুলিকে চার্জ করেছেন তারা। যে সমস্ত ব্যাংক এইভাবে বেশি টাকা নিয়েছে তাদেরকে অতিরিক্ত অর্থ পুনরায় গ্রাহকদের কে ফিরিয়ে দিতে বলেছে রিজার্ভ ব্যাংক। আর সেই কাজ না করলে তাদের কঠোর শাস্তি দেওয়া হবে, এই কথাও হয়েছে জানানো। তবে এখানেই শেষ নয়, ব্যাংক গুলির বিরুদ্ধে আরো কিছু দুর্নীতির (Bank Loan Interest Fraud) প্রমাণ দেখেছে আরবিআই।

Advertisement

অনেক ক্ষেত্রে গ্রাহকদের লোনের আবেদন মঞ্জুর করা হলেও হাতে টাকা দেওয়া হয়নি তাদের। কিন্তু সেই দিন থেকেই শুরু হয়ে গিয়েছে সুদ নেওয়া। আবার কাউকে চেক মারফত লোন দিয়েছে ব্যাংক। কিন্তু সেই চেক ভাঙ্গিয়ে গ্রাহক টাকা পাননি তখনও, তখন থেকেই শুরু হয়ে গিয়েছে সুদ গোনা। এছাড়াও কিছু ব্যাংকের বিরুদ্ধে লোন পাস হওয়ার আগেই অগ্রিম সুদ নেওয়ার অভিযোগও মিলেছে।

SBI WeCare Fixed Deposit Scheme (ফিক্সড ডিপোজিট স্কীম)

RBI এর বক্তব্য, এই গুলো ব্যাংকিং সিস্টেমের বিরুদ্ধাচারণ। কারণ কোন গ্রাহকের কাছ থেকে ততক্ষণ সুদ না নেওয়া যাবে না, যতক্ষণ তিনি লোনের টাকা হাতে পাচ্ছেন। ২০২৪ এর ৩১ শে মার্চ পর্যন্ত এই ধরনের অনেক অভিযোগ মিলেছে দেশের বিভিন্ন প্রান্তের ব্যাংক গুলির বিরুদ্ধে। সে কারণেই তড়িঘড়ি ব্যাংক ঋণ এর নিয়ম লঙ্ঘন করা নিয়ে ব্যাংক গুলিকে সতর্ক করলো এবার রিজার্ভ ব্যাংক।

ATM Card এর খরচ বাড়ছে। গ্রাহকদের বিভিন্ন চার্জ বেড়ে গেল। জেনে নিন

যে ব্যাংক লোন নিয়ে এভাবে ছেলেখেলা করেছে তাকে সেই ভুল শুধরে নিতে বলা হল। এরপরও যদি কোন ব্যাংকের বিরুদ্ধে এরকম অভিযোগ জমা পড়ে তার বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তি মূলক পদক্ষেপ নেবে রিজার্ভ ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া, এমনটা বলেছেন তারা। এবারে কোন গ্রাহক যদি Loan নিয়ে এই ধরণের সমস্যার সম্মুখীন হয় তাহলে তাকে এখনই এই নিয়ে অভিযোগ জানানো উচিত।
Written by Nabadip Saha.

বাড়ি বানানোর জন্য 20 লাখ টাকার Home Loan নিলে, প্রতিমাসে কত টাকা EMI দিতে হবে আপনাকে?

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment