WBCHSE Exam – একাদশ ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের সিলেবাস ও পরীক্ষার নিয়ম বদল।

আমূল বদল স্কুলের পড়াশোনায়, নয়া পদ্ধতিতে সিলেবাস ও পরীক্ষা নেওয়া হবে, WBCHSE Exam এর কি সেই পরিবর্তন, জেনে নিন।

Advertisement

সেমেস্টার পদ্ধতি চালু হতে চলেছে উচ্চ মাধ্যমিক (WBCHSE Exam) স্তরে। এতদিন পর্যন্ত উচ্চশিক্ষা কিংবা বিভিন্ন ধরনের কারিগরি শিক্ষার ক্ষেত্রে সেমেস্টার পদ্ধতির চল ছিল। কিন্তু বর্তমানে জাতীয় শিক্ষানীতিতে সেমেস্টার (Semester) পদ্ধতি চালু করার সুপারিশ করা হয়েছে। তাই সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী বছরের শিক্ষাবর্ষ থেকেই একাদশ এবং দ্বাদশ শ্রেণীতে Semester পদ্ধতিতে পঠন-পাঠন চালু করতে পারে উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ (WBCHSE).

Advertisement

WBCHSE Exam and Syllabus

কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন মোদি সরকারের যে জাতীয় শিক্ষানীতি প্রকাশ করা হয়েছে, সেখানে উচ্চশিক্ষার পাশাপাশি মাধ্যমিক (WBBSE) এবং উচ্চ মাধ্যমিক (WBCHSE Exam) স্তরেও সেমেস্টার পদ্ধতি চালু করার সুপারিশ করা হয়েছে। ইতিমধ্যেই দেশের বহু রাজ্যে উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে সেমেস্টার পদ্ধতি চালু রয়েছে। মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক স্তরেও সেমেস্টার পদ্ধতি চালু করেছে একাধিক রাজ্য।

কিন্তু পশ্চিমবঙ্গে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক স্তরের শিক্ষা ব্যবস্থাকে একত্রিত করতে চায়নি। মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক (WBCHSE Exam) যেরকম দুটির আলাদা বোর্ড রয়েছে, দুই ক্ষেত্রেই যেভাবে আলাদাভাবে পরীক্ষা নেওয়ার ব্যবস্থা রয়েছে, সেরকমটাই করতে চায় রাজ্য সরকার। কিন্তু উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে সেমেস্টার পদ্ধতিতে পঠন পাঠন চালু করার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে রাজ্য সরকার। তার কারণ, ছাত্র-ছাত্রীদের ভবিষ্যতের কথা ভেবে সর্বভারতীয় বিভিন্ন বোর্ড এবং জাতীয় শিক্ষানীতির সঙ্গে সমন্বয় রেখে সরকার চলতে চাইছে।

এক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় সরকারের জাতীয় শিক্ষানীতি গত বছর প্রকাশ করার পর রাজ‍্য সরকারের শিক্ষা দফতরের বিশেষ কমিটি সেই শিক্ষানীতিতে বেশ কিছু সংশোধন এবং পরিমার্জন করেছে। তারপর সেই সংশোধিত খসড়া রাজ‍্য সরকারের কাছে জমা দেওয়া হয়েছে। রাজ‍্য সরকারের শিক্ষা দফতরের বিশেষ কমিটির নেতৃত্বে রয়েছেন বিখ্যাত আন্তর্জাতিক লেখিকা এবং শিক্ষাবিদ গায়ত্রী চক্রবর্তী স্পিভাক।

Advertisement

ওই কমিটির পক্ষ থেকে সরকারের কাছে যে খসড়া জমা দেওয়া হয়েছে, সেখানে পরীক্ষা পদ্ধতিতে বদল এনে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে Semester পদ্ধতি চালু করার সুপারিশ করা হয়েছে। খসড়া রিপোর্টে বলা হয়েছে, ছাত্র-ছাত্রীরা উচ্চ মাধ্যমিক (WBCHSE Exam) স্তর থেকে সেমেস্টার পদ্ধতিতে পঠন-পাঠন শুরু করলে পরবর্তীতে উচ্চ শিক্ষার ক্ষেত্রে তাদের কোনো সমস্যা হবে না। সেমেস্টার পদ্ধতি চালু করার পাশাপাশি উচ্চ মাধ্যমিকে OMR শীট চালু হতে পারে বলে জানা যাচ্ছে।

রাজ্যে একাদশ-দ্বাদশ শ্রেনীর পরীক্ষায় হঠাৎ বদল! উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা পর্ষদের বিশেষ সিদ্ধান্ত। কী কী পাল্টে যাচ্ছে?

উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ (WBCHSE Exam) সেমেস্টার পদ্ধতি চালু করার ব্যাপারে সম্পূর্ণ প্রস্তুত রয়েছে। কেন্দ্রের জাতীয় শিক্ষানীতির সংশোধন করে শিক্ষা দপ্তরের বিশেষ কমিটি যে খসড়া রিপোর্ট রাজ্য সরকারের কাছে জমা দিয়েছে, সেখানে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে সেমেস্টার পদ্ধতিতে পরীক্ষা নেওয়ার কথা বলা রয়েছে। তাই সব কিছু ঠিক চললে ২০২৩ সালে যে সমস্ত ছাত্র-ছাত্রীরা একাদশ শ্রেণীতে ভর্তি হবেন সেই সময় থেকেই সেমেস্টার পদ্ধতি চালু হয়ে যাবে।

তবে রাজ্যের বিভিন্ন শিক্ষাবিদ থেকে শুরু করে পড়ুয়া এবং অভিভাবকদের মধ্যে এই সেমেস্টার পদ্ধতি উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে চালু করা নিয়ে বিভিন্ন ধরনের মত রয়েছে। তাদের অনেকের মতে, একেই স্কুলগুলিতে সঠিক সময়ে পড়াশোনার সিলেবাস শেষ করা যায় না। তার উপরে সেমেস্টার পদ্ধতিতে ছয় মাস অন্তর পরীক্ষা নিতে গেলে হয় সিলেবাস কমিয়ে দিতে হবে, না হলে বিভিন্ন যে ছুটি রয়েছে তা কমাতে হবে। আবার সিলেবাস কমানো খুব একটা সহজ নয়।

এবারের মাধ্যমিক পরীক্ষা নিয়ে নতুন নিয়ম, পরীক্ষার্থীরা খুশি, বিশাল চাপে স্কুল শিক্ষকেরা।

সেমেস্টার পদ্ধতির জন্য সিলেবাস শেষ করা আরো কঠিন হয়ে যাবে। পরীক্ষা গ্রহণ করা এবং তার প্রস্তুতি নেওয়ার জন্য যথেষ্ট সময় ব্যয় হবে। তবে শিক্ষাবিদদের অনেকেই সিলেবাস কমানোর পক্ষে নন। তাই কেন্দ্রীয় সরকারের নতুন জাতীয় শিক্ষানীতি অনুযায়ী সেমছস্টার চালু করার ক্ষেত্রে টাইম ম্যানেজমেন্টটা একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হয়ে উঠছে। তবে সেমেস্টার পদ্ধতি উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে চালু করার ব‍্যাপারে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ (WBCHSE Exam) প্রস্তুত বলেই জানা গিয়েছে।
Written by Rajib Ghosh.

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment