Advertisement
file78vghdlv6ac1d5mwhmfd 1579424908
Advertisement

পাঁচদিন ধরে একাটানা ছাত্র আন্দোলনে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে (Visva Bharati University) জারি অচলাবস্থা। বুধবার সকালে উপাচার্যের বাড়ির গেটের সামনে দুধ, কলা দিলেন আন্দোলনকারী পড়ুয়ারা। প্রতিদিনই এভাবে উপাচার্যকে দুধ, কলা দেওয়া হবে বলেই জানিয়েছেন তারা। এদিকে, ছাত্র আন্দোলনে অনির্দিষ্টকালের জন্য বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। কেন্দ্রীয় অফিসের সামনের রাস্তার দু’টি গেটেই তালা দিয়ে দেওয়ার জন্য কোনও কর্মী কেন্দ্রীয় অফিসে যেতে পারেননি। তাই এদিন কর্মীদের বেতন এবং পেনশনভোগীদের পেনশন হয়নি বিশ্বভারতীতে। মঙ্গলবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিস্থিতি নিয়ে উপাচার্যের পৌরহিত্যে বিভিন্ন বিভাগীয় প্রধান সহ আধিকারিকদের ভারচুয়াল বৈঠক হয়। উপাচার্য অভিযোগ করেন, ছাত্ররা কেন্দ্রীয় অফিসের দু’টি গেটে তালা দিয়ে দিয়েছে। তাই কোনও কর্মী কেন্দ্রীয় অফিসে ঢুকতে পারছেন না। ফলে আগস্ট মাসের বেতন ও পেনশন দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। প্রতিদিন যেভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে, তাতে ভরতি প্রক্রিয়া, পরীক্ষার ফলপ্রকাশ সম্ভব নয়। কর্তৃপক্ষ অধ্যাপকদের পাঠালেও আন্দোলনকারী ছাত্রছাত্রীরা কোনও আলোচনা চায় না বলে বৈঠকে অনেকে অভিযোগ করেন। যদিও কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রক বিশ্বভারতীকে আলোচনা চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে বলেই খবর। এই অবস্থায় এদিনই কর্মসমিতির জরুরি বৈঠক ডাকা হয়। বিশ্ববিদ্যালয় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত সেই বৈঠকে নেওয়া হতে পারে বলে সূত্রের খবর। এদিকে সময়মতো বেতন না মেলায় সমস্যায় পড়েন কয়েক হাজার কর্মী।

Advertisement
Advertisement
Advertisement

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Advertisement