Swasthya Sathi Card – নতুন করে স্বাস্থ্যসাথী কার্ডের জন্য আবেদন করুন। এবার পাবেন লক্ষ্মীর ভান্ডার ও 5 লাখ টাকার সুবিধা।

পশ্চিমবঙ্গবাসীকে বিনা পয়সায় চিকিৎসা দেওয়ার জন্য Swasthya Sathi Card বা স্বাস্থ্যসাথী কার্ড শুরু করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি (CM Mamata Banerjee). আবার এই স্বাস্থ্যসাথী কার্ড এর ফর্ম ফিলাপ শুরু হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গবাসীরা অনলাইন এবং অফলাইন দুই ভাবে এই ফর্ম ফিলাপ করতে পারবে। যে সমস্ত ব্যক্তিদের স্বাস্থ্যসাথী কার্ড রয়েছে তাদের পাঁচ লক্ষ টাকা করে দেবে রাজ্য সরকার। আর এই টাকায় পশ্চিমবঙ্গবাসীরা সরকারি এবং বেসরকারি নার্সিংহোমে চিকিৎসা করাতে পারবে।

Advertisement

Swasthya Sathi Card Online And Offline Process.

স্বাস্থ্যসাথী কার্ডের জন্য আবেদন করা যাবে অনলাইন এবং অফলাইন উভয় ভাবেই। Swasthya Sathi Card এর জন্য কিভাবে আবেদন করা যাবে? কি কি ডকুমেন্টস লাগবে এই সমস্ত তথ্যের জন্য আর্টিকেলটি সম্পূর্ণ পড়ুন।স্বাস্থ্যসাথী কার্ডের জন্য আবেদন করতে গেলে প্রথমে অফিসিয়াল ওয়েবসাইট www.swasthyasathi.gov.in এ গিয়ে Apply Online ক্লিক করে আবেদন করতে হবে। আবার স্বাস্থ্যসাথী কার্ডের জন্য আবেদন অফলাইনেও করা যাবে।

Advertisement

স্বাস্থ্য সাথী কার্ড কিভাবে পাবো

অফলাইনে আবেদনের জন্য নিকটবর্তী দুয়ারে সরকার ক্যাম্পে (Duare Sarkar Camp) যেতে হবে। ওই দুয়ারে সরকার ক্যাম্প থেকে Swasthya Sathi Card এর জন্য আবেদন পত্র নিয়ে এসে সে গুলি সঠিকভাবে পূরণ করে ডকুমেন্টস এর সহিত জমা দিলেই স্বাস্থ্যসাথী কার্ড তৈরি হয়ে যাবে। স্বাস্থ্যসাথী এর জন্য ফর্ম ফিলাপ করতে কি কি ডকুমেন্টস লাগবে? আধার কার্ড (Aadhaar Card), ভোটার কার্ড (Voter Card), রেশন কার্ড (Ration Card) এবং বাচ্চাদের জন্ম সার্টিফিকেট যদি কোনো ডকুমেন্টস না থাকে।

Lakshmir Bhandar (লক্ষ্মীর ভাণ্ডার)

স্বাস্থ্য সাথী কার্ড ফর্ম ফিলাপ

Swasthya Sathi Card ফর্ম ফিলাপ – স্বাস্থ্যসাথী কার্ডের জন্য আবেদন পত্রটি প্রথমে ভালো করে পড়বেন। এরপর দেখুন কোথায় কি লিখতে হবে। ওই ফর্মটির বাঁদিকে আবেদনকারীর জেলা, ব্লক, মিউনিসিপালিটি, গ্রাম পঞ্চায়েত, গ্রাম, ওয়ার্ড ও সম্পূর্ণ ঠিকানা নির্ভুল ভাবে লিখবেন। ফর্ম ফিলাপ হয়ে গেলে দুয়ারে সরকার ক্যাম্পে গিয়ে ফর্মটি ডকুমেন্ট সমেত জমা দিয়ে আসতে হবে।

বাংলার কৃষকদের জন্য বড় সুখবর! কৃষক বন্ধুর দ্বিতীয় কিস্তির টাকা ঢুকছে অ্যাকাউন্টে। নিজের নাম দেখে নিন।

স্বাস্থ্য সাথী কার্ড চেক

ফর্ম জমা দেওয়া হয়ে গেলে স্বাস্থ্যসাথী কার্ড এর স্ট্যাটাস চেক (Swasthya Sathi Card Status Check) করার জন্য প্রথমে স্বাস্থ্যসাথী কার্ডের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে। ওয়েবসাইটে গিয়ে Online Apply এ ক্লিক করার পর Check Your Online Application Status এ ক্লিক করে Status চেক করে নেবেন। আর এই সহজ পদ্ধতি অবলম্বন করার মাধ্যমে আপনারা এই কাজটি সম্পন্ন করে নিতে পারবেন।

Advertisement

একবার স্বাস্থ্য সাথী কার্ড হয়ে গেলে, পরিবারের মহিলারা লক্ষ্মীর ভান্ডার প্রকল্পে আবেদন করতে পারবেন। আর এতে মাসে মাসে যেমন টাকা পাবেন, তেমনি ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত হাসপাতালে চিকিৎসার খরচ পাবেন।
এই বিষয়ে আরও জানতে EK24 News ফলো করুন।
আপনাদের কোনও প্রশ্ন থাকলে নিচে কমেন্ট করুন।
Written By Nupur Chattopadhyay.

 ফ্রিতে রান্নার গ্যাস দেবে মোদী সরকার। তাড়াতাড়ি এই কাজ করুন।

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment