SIP Calculator – মাত্র 100 টাকা করে জমিয়ে কোটি টাকা ফেরত নিন। বিশ্বাস না হলে উপায় জেনে নিন।

এসআইপি বা SIP Calculator সম্পর্কে জানার জন্য অনেক মানুষের খুবই ইচ্ছা থাকে। আর ব্যাংক, পোস্ট অফিস অথবা LIC ছাড়াও যদি কোন জায়গায় বিনিয়োগ করতে চান তাহলে সকলে SIP তে বিনিয়োগ করতে চান। সেই সকল মানুষের জন্য নতুন বছরে দুর্দান্ত ট্রিক। এখন থেকে টাকা ডবল হবে রকেটের গতিতে। সামান্য বিনিয়োগ করলেও আপনি এত রিটার্ন পাবেন ভাবতে পারছেন না। এই উপায়টি একদম বৈধ এবং যথাযথ লাভ দেবে আপনাকে।

Advertisement

SIP Calculator Online.

এখানে নেই কোন মধ্যস্থতাকারী, সরাসরি আপনি বিনিয়োগ করবেন এবং লাভের পুরো টাকা আপনিই পাবেন। কি ভাবছেন এটা মিথ্যা কথা, না। আসলে বিনিয়োগ তো আমরা অনেকেই কম সম করি, কিন্তু বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই সঠিক নিয়ম না জানায় লাভ পাই না তেমন। কিন্তু এরপর থেকে আর ঠকবেন না। SIP Calculator বা সিস্টেমেটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যান আপনাকে দেবে কম বিনিয়োগে বড় লাভের সুযোগ।

Advertisement

এখানে আপনি মাসিক ১০০ টাকা থেকে বিনিয়োগ (SIP Calculator) শুরু করতে পারেন। তবে মেয়াদ শেষে পাবেন একসঙ্গে ৪,৫০,০০,০০০ টাকা। তাই এবার আপনিও যদি কোটিপতি হতে চান, তাহলে এই ট্রিক (SIP Investment Tricks) জেনে নেওয়া অত্যন্ত জরুরী। কিন্তু সব কথার শেষ কথা আপনারা যে কোন ধরণের আর্থিক বিনিয়োগের (Financial Investment) আগে সেই সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জেনে নেবেন।

সিস্টেমেটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যান

সিস্টেম্যাটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যান (SIP) হল মিউচুয়াল ফান্ডের দ্বারা প্রস্তাবিত একটি পথ যেখানে একটি নিয়মিত ইন্টারভেল বা অন্তরে মিউচ্যুয়াল ফান্ড স্কিমে (SIP Calculator) একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ বিনিয়োগ করতে পারেন ধরুন মাসে একবার বা ত্রৈমাসিক কালে একবার, এক যোগে বিনিয়োগ করার পরিবর্তে। কিস্তির পরিমাণ মাসে 500 টাকার যতো ছোট পরিমান হতে পারে এবং এটি রেকারিং ডিপোজিটের (RD) মতোই।

এটা সুবিধাজনক কারণ আপনি আপনার ব্যাংককে প্রতিমাসে পরিমাণটি ডেবিট করা বা কেটে নেওয়ার স্ট্যান্ডিং ইন্সট্রাকশন বা স্থায়ী নির্দেশাবলী দিতে পারেন। SIP ভারতীয় মিউচুয়াল ফান্ডের (SIP Calculator Investment) বিনিয়োগকারীদের মধ্যে জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে, কারণ এটি বাজারের অস্থিতিশীলতা এবং বাজারের সময় সম্পর্কে উদ্বেগ ছাড়াই নিয়মনিষ্ঠভাবে বিনিয়োগ করতে সহায়তা করে।

Advertisement

মিউচুয়াল ফান্ড (Mutual Fund) গুলির দ্বারা প্রস্তাবিত সিস্টেম্যাটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যান গুলি সহজেই দীর্ঘমেয়াদের জন্য বিনিয়োগের (SIP Calculator) দুনিয়াতে প্রবেশ করার সেরা উপায়। এখানে দীর্ঘমেয়াদে বিনিয়োগ হয়। যার ফলে একসঙ্গে অনেক টাকা আপনি রিটার্ন পান। সুতরাং আপনার মন্ত্র হওয়া উচিত তাড়াতাড়ি শুরু করুন, নিয়মিত বিনিয়োগ করুন আপনার বিনিয়োগের (SIP Calculator) থেকে সেরাটি পেতে।

SIP গোপন ট্রিক

উপদেষ্টাদের মতে, এস আই পি তে বিনিয়োগের (SIP Investment) সবচেয়ে সঠিক সূত্রটি হল স্টেপ আপ সূত্র। এখানে আপনাকে কমপক্ষে ১০০ টাকা থেকে বিনিয়োগ শুরু করতে হবে। এই বিনিয়োগ (SIP Calculator) আপনাকে চক্রবৃদ্ধি সুদের সুবিধা দেবে। যেখানে বছরে ১৫ শতাংশ সুদের হারে আপনার টাকা বেড়ে চলবে। ৩০ বছর ধরে আপনার টাকা জমা থাকবে এখানে। ফলে বুঝতেই পারছেন মেয়াদ শেষে আপনি এক সঙ্গে কত রিটার্ন পেতে চলেছেন।

তবে এর জন্য আপনাকে ছোট্ট একটি শর্ত মানতে হবে। স্টেপ আপ সূত্রের প্রধান শর্ত হলো এর স্টেপ আপ রেট বজায় রাখা। যেটি বছরে ১০ শতাংশ হারে মেন্টেন করতে হয়। রেট বজায় রেখে যদি আপনি বিনিয়োগ (SIP Calculator) করতে থাকেন তবে ৩০ বছর পর সুদে-আসলে আপনার আকাশ ছোঁয়া লাভ হবে। কিন্তু আপনাকে সঠিক জিনিস জেনে বিনিয়োগ করতে হবে।

SBI Interest Rate (স্টেট ব্যাংকের সুদের হার)

কত রিটার্ন পাবেন

৩০ বছর বয়স হলেই এসআইপি বিনিয়োগ (Mutual Fund SIP) শুরু করা যায়। প্রতি মাসে ন্যূনতম ১০০ টাকা থেকে বিনিয়োগ (SIP Calculator) করতে হয়। সেক্ষেত্রে আপনার বছরে বিনিয়োগের পরিমাণ হবে ৩০০০ টাকা। যেহেতু এটি দীর্ঘমেয়াদী বিনিয়োগ তাই, বিনিয়োগের মেয়াদ ৩০ বছর। বছরে ১৫ শতাংশ হারে চক্রবৃদ্ধি সুদ লাভ করবেন। তাহলে সেই হিসেবে, পরের বছর আপনার শুধু সুদ হবে ৩০০ টাকা এবং তারপরের বছর ৩৩০ টাকা।

LIC এর বাম্পার পলিসি। হাতখরচের টাকা জমিয়ে প্রতিমাসে পান সারাজীবন 11000 টাকা।

এইভাবে ৩০ বছর শেষে SIP Calculator অনুসারে, আপনার মোট বিনিয়োগ সহ লাভ হবে ৫৯,২১,৭৮৫ টাকা। এখানে বিনিয়োগ বাদে আপনার শুধু রিটার্ন হচ্ছে ৩ কোটি ৯১ লাখ ৪৫ হাজার ২৫ টাকা। আর এই পরিমাণ টাকা আপনারা অন্য কোন আর্থিক প্রতিষ্ঠান থেকে পাবেন না বলে মনে করছেন অনেক আর্থিক বিশেষজ্ঞ। তাই যারা নতুন বছরে বিনিয়োগ করতে চাইছেন তারা ১লা জানুয়ারিতেই বিনিয়োগ করতে পারবেন।
Written by Nabadip Saha.

নতুন বছরে পোস্ট অফিস সেভিংস একাউন্ট খুললেই দিচ্ছে

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment