Salary Account SBI

Salary Account SBI – স্যালারি একাউন্ট থাকলেই বিশেষ সুবিধা দিচ্ছে SBI.

আপনি যদি কোনও স্থায়ী সংস্থায় চাকরী করে থাকেন, এবং আপনার যদি ষ্টেট ব্যাংকে স্যালারি একাউন্ট (Salary Account) থাকে তবে আপনার জন্য সুখবর। ষ্টেট ব্যাংক দিচ্ছে একাধিক সুবিধা। দেখুন বিস্তারিত।

প্রথমত আপনি যদি যেকোনো রাজ্য বা কেন্দ্রীয় সরকারী সংস্থার স্থায়ী কর্মী হয়ে থাকেন, এবং SBI এর যে শাখায় আপনার স্যালারি একাউন্ট (Salary Account) থাকবে, সেই একাউন্ট এর উপর SBI আপনাকে দেবে একটি ফ্রিতে ক্রেডিট কার্ড। যেখানে আপনাকে ০ প্রসেসিং ফি (একটি পয়সা ও লাগবে না) তে ক্রেডিট কার্ড টি পাবেন। এখানে বছরে আপনি ৫০০ টাকার ট্রান্সেক্সন করলে আপনি পাবেন ১০০ টাকা ক্যাশ ব্যাক।

তিন মাস ২লাখ টাকা পর্যন্ত কেনাকাটায় কোনও সুদ লাগবে না। এছাড়া ২ লাখ টাকা পর্যন্ত সর্বনিম্ন সুদে পার্সোনাল লোন নিতে পারবেন। এছাড়া হোম লনের ক্ষেত্রেও পাবেন বিশেষ সুবিধা। এবং এই স্যালারী একাউন্ট জিরো ব্যালেন্সে রাখতে পারবেন। (Salary Account).

পর্ষদের সভাপতির পদ থেকে অপসারণের পর মানিক ভট্টাচার্যকে কি নির্দেশ হাইকোর্টের?

আর আপনি যদি কেন্দ্রীয় সরকারী কর্মী হয়ে থাকেন (Salary Account) তবে আপনার জন্য রয়েছে আরো সুবিধা। প্রসঙ্গত, ইতিমধ্যেই জানা গিয়েছে, 7th Pay Commission-এর প্রস্তাব মত কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের DA বাড়তে চলেছে। সেই DA-র পরিমাণ 4 থেকে 5 শতাংশ বাড়তে পারে বলে আশা করা হচ্ছে। ফলে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীরা অনেকটা বেশি টাকা এবার তাদের পকেটে ঢোকাতে পারবেন।

তারপরে কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মচারী এবং পেনশনভোগীদের জন্য দেশের সর্ববৃহৎ রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক SBI -এর সঙ্গে হাত মিলিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারের পেনশন ও পেনশনভোগী কল্যাণ দপ্তর বিশেষ পদক্ষেপ গ্রহণ করতে চলেছে। এই পদক্ষেপ গ্রহণ করা হলে কি কি সুবিধা পাওয়া যাবে, সেগুলো জেনে নেওয়া যাক। (Salary Account)

EK24 News

কেন্দ্রীয় সরকারের পেনশন ও পেনশনভোগী কল্যাণ দপ্তর স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার সঙ্গে হাত মিলিয়ে একটি পোর্টাল চালু করছে। সেই ইন্টিগ্রেটেড পেনশন পোর্টালের মাধ্যমে পেনশনভোগীদের বিভিন্ন সুবিধা প্রদান করা হবে। (Salary Account).

দিনের-পর-দিন লটারি টিকিট কেটে হতাশ? এই নম্বর বাছুন আর ম্যাজিক দেখুন।

রাজস্থানের জয়পুরে দেশের সর্ববৃহৎ রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক SBI এবং কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে ব্যাংক আধিকারিকদের একটি বিশেষ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছিল। সেই কর্মসূচিতেই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে SBI এবং কেন্দ্রীয় সরকারের যে পোর্টালগুলো পেনশনভোগীদের নির্ঝঞ্ঝাটে বিভিন্ন ধরনের পরিষেবা প্রদান করার জন্য রয়েছে, সেইগুলিকে মিশিয়ে একটি ইন্টিগ্রেটেড পেনশন পোর্টাল তৈরি করা হবে। (Salary Account)

কেন্দ্রের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ডিজিটাল লাইফ সার্টিফিকেট (Digital Life Certificate) এবং ফেস অথেন্টিকেশন টেকনোলজির (Face Authentication Technology) বিষয়টি লাইফ সার্টিফিকেট জমা দেওয়ার প্রক্রিয়ার মধ্যে নতুন যুগের সূচনা করবে।
পেনশনভোগীদের আয়কর সংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্য এবং ডিজিটাল মাধ্যমে অ্যানুয়াল লাইফ সার্টিফিকেট জমা দেওয়ার বিষয়টিও জানানো হয়েছে। (Salary Account)

কেন্দ্রীয় সরকার এবং এফবিআইয়ের একসঙ্গে এই কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছিল। সেখানে কেন্দ্রের প্রাক্তন আধিকারিকদের পেনশন প্রদান এবং নীতি সংস্কার সংক্রান্ত বিষয়ে SBI-এর আধিকারিকদের সচেতন করার লক্ষ্যেই কর্মসূচির আয়োজন হয়েছিল।
Written by Rajib Ghosh

দেশে তৈরী প্রথম বিলিতি মদ, 35% কম দামে বেশি ঝাঁজ, পশ্চিমবঙ্গে নতুন দামের লিস্ট দেখুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.