Primary TET 2014 News – CBI তদন্তে পাশ, চাকরী বেঁচে গেল মোট ২৬ হাজার প্রাথমিক শিক্ষকের, বাকিদের কি হবে।

Primary TET 2014 News: বড় খবর, প্রাথমিক শিক্ষকদের চাকরি কি বাঁচতে পারে? জানুন বিস্তারিত.

2014 সালে টেট পরীক্ষায় পাশ করে যারা প্রাথমিক শিক্ষক পদে চাকরি (Primary TET 2014 News) পেয়েছেন, বর্তমানে চাকরিরত রয়েছেন, তারা বুঝেই উঠতে পারছেন না তাদের চাকরি থাকবে না কি চলে যাবে। ফলে প্রাথমিক শিক্ষকরা এই মুহূর্তে সমস্যায় জেরবার। প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগে (Primary Teachers Recruitment) দুর্নীতির অভিযোগ একের পর এক বেড়েই চলেছে।

Advertisement

এখন জানা যাচ্ছে, বিভিন্ন জেলায় প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের (Primary TET 2014 News) নথিপত্র খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের দুর্নীতির বিষয়ে সিবিআই তদন্ত করছে। 2014 সালের TET পাস করে যারা শিক্ষকের চাকরি পেয়েছেন, তাদের প্রত্যেককেই 10টি নথিসহ সমস্ত তথ্য জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে CBI. আর সেই নথিপত্র যাচাই ও শুরু করেছে। আর তা চেক করতে গিয়ে উঠে এলো চোখ কপালে উঠে যাওয়ার মত তথ্য।

Advertisement

ইতিমধ্যেই প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের তরফে লিখিতভাবে নির্দেশ (Primary TET 2014 News) দেওয়া হয়েছে, সমস্ত প্রাথমিক শিক্ষকদের 10 টি প্রয়োজনীয় তথ্য সহ সমস্ত নথিপত্র জমা করতে। যে সমস্ত তথ্য চাওয়া হয়েছে, তার মধ্যে রয়েছে, নিয়োগপত্রের প্রতিলিপি, চাকরির জয়েনিং রিপোর্ট, 2014 সালের TET পরীক্ষার অ্যাডমিট কার্ড, প্রাথমিকের প্রশিক্ষণের শংসাপত্র, জাতিগত শংসাপত্র (যদি থাকে), TET পরীক্ষায় যোগ্যতা অর্জনের তথ্য, সর্বস্তরের পরীক্ষার মার্কশীট এবং অ্যাডমিট কার্ড, প্যারাটিচার এনগেজমেন্ট লেটার, যদি পূর্বের কোনো অভিজ্ঞতা থেকে থাকে সেই সম্বন্ধে সমস্ত তথ্য এবং টেট সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য।

জরুরী ঘোষনা! SBI চালু করল দুটি বড় নিয়ম।

রাজ্যের হাজার হাজার প্রাথমিক শিক্ষকের মধ্যে আশঙ্কা বাড়ছে চাকরি হারানোর। যত দিন যাচ্ছে, ততই এই আশঙ্কাও তীব্র হচ্ছে। জানা গিয়েছে, 2014 সালে TET পরীক্ষায় পাশ করে প্রাথমিকের শিক্ষকের (Primary TET 2014 News) পদে নিয়োগের সময় শুধুমাত্র অ্যাডমিট কার্ড এবং মার্কশীট ভেরিফাই করা হয়েছিল। অন্য কিছুই ভেরিফাই করা হয়নি।

এবার কেন অন্যান্য নথি ভেরিফাই হয়নি, সেই বিষয়টি স্পষ্ট হয়েছে নিখিলবঙ্গ প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদকের কথায়। তিনি বলেন, টেট পরীক্ষায় পাশ করার পর ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে। কিন্তু সরকারের পক্ষ থেকে কোনো সার্টিফিকেট (Primary TET 2014 News) দেওয়া হয়নি। টেটের পাশের সার্টিফিকেট দেওয়ার দায়িত্ব সরকারের। ফলে সেই সার্টিফিকেট যখন সরকারের পক্ষ থেকে দেওয়া হয়নি, তখন সেই নথি কিভাবে জমা করা হবে?

Advertisement

2014 সালে টেট পরীক্ষায় পাশ করে যারা 2017 থেকে 2020 সালের মধ্যে প্রাথমিকে শিক্ষক পদে নিয়োগ পেয়েছেন, তাদের প্রত্যেককেই 10 টি প্রয়োজনীয় তথ্য সহ সমস্ত নথিপত্র জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এবার যদি নিখিলবঙ্গ প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির প্রধানের কথা অনুযায়ী সরকার টেট সার্টিফিকেট না প্রদান করে থাকেন, তাহলে কিভাবে সেই নথি জমা করা সম্ভব? এই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে।

এই বিষয়ে ABPTA-র পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, কেউ কোনো ফাঁদে পা দেবেন না। যারা নিজেদের শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং দক্ষতার ভিত্তিতে প্রাথমিকে শিক্ষকের চাকরি পেয়েছেন, ABPTA সব সময় তাদের পাশে থাকবে। অর্থাৎ যারা শিক্ষাগত যোগ্যতা (Primary TET 2014 News) এবং দক্ষতার ভিত্তিতে চাকরি পেয়েছেন তাদের চাকরি বাঁচতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে সমস্তটাই নির্ভর করছে আদালতের সিদ্ধান্তের ওপর।

সরকারি চাকরিতে কৃষি দপ্তরে 5000 এরও বেশি পদে চলছে নিয়োগ।

অন্যদিকে রাজ্য সরকার জানিয়ে দিয়েছে, একজনের ও চাকরী (Primary TET 2014 News) যাবে না। এদিকে রাজ্য সরকারই সমস্ত নথি যাচাইয়ের নির্দেশ দিয়েছে। আর কয়ে হাজার প্রাথমিক শিক্ষক সব নথি একসাথে জমা দিতে পারেনি। অনেকেই বলছেন, হারিয়ে ফেলেছেন, তবে তাদের মধ্যে সবাই কি সত্যিই হারিয়ে ফেলেছে নাকি, অন্য কারন রয়েছে? প্রশ্ন উঠছে। আপনার কি মনে হয়, নিচে কমেন্ট করে অবশ্যই জানাবেন।
Written by Rajib Ghosh.

লটারি কাটার গোপন ফর্মুলা, একবার এপ্লাই করুন, ম্যাজিক দেখুন।

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment