Primary TET 2014 – টেট মামলায় নথি ঠিক না থাকায় 2017 সালের প্রাথমিক শিক্ষকদের তলব করছে আদালত, কতজনের ডাক পড়লো, দেখুন।

Primary TET 2014 – ডকুমেন্টস ঠিক না থাকায় ২০১৭-২০১৯ এর মধ্যে জয়েন করা শিক্ষকদের ডাক পড়লো।

ফের Primary TET 2014 এর খবর শিরোনামে। একে একে ডাক পড়ছে ২০১৭ থেকে ২০১৯ সালের মধ্যে যোগদান করা প্রাথমিক শিক্ষকদের। আর দেকে পাঠাচ্ছে সয়ং কেন্দ্রীয় সংস্থা। রইলো বিস্তারিত বিবরণ।

Advertisement

Primary TET 2014 সহ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি নিয়ে একাধিক মামলা দায়ের হয়েছে কলকাতা হাইকোর্টে। কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা CBI তদন্ত করছে। ইতিমধ্যে 269 জনের চাকরি বাতিল করা হয়েছে। একাধিক পদক্ষেপ নিতে শুরু করেছে CBI.

Advertisement

তবে এবার প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির মধ্যে Primary TET 2014 সংক্রান্ত মামলায় 55 থেকে 60 জন প্রাথমিক শিক্ষককে তলব করেছে ইডি (Enforcement Directorate)। সিজিও কমপ্লেক্সে আগামী সপ্তাহেই হাজির দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সংবাদ সুত্রে জানা গেছে, 269 জনকে বাড়তি 1 নম্বর করে দেওয়া হয়েছিল। সেই বিষয় নিয়ে আদালত প্রশ্ন তোলে। 2017 সালে যে দ্বিতীয় নিয়োগ তালিকা প্রকাশ হয়, সেই নিয়োগগুলি আদালতের তরফ থেকে বেআইনি বলে ঘোষণা করা হয়েছে।

প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের পক্ষ থেকে প্রশ্নপত্রে ভুল থাকার কারণে বাড়তি 1 নম্বর 269 জনকে দেওয়া হয়েছিল বলে দাবি করা হয়। আদালত এর পর্যবেক্ষণ ছিল, যদি প্রশ্নপত্র ভুলের কারণে বাড়তি 1 নম্বর করে দিতে হয়, তাহলে সে ক্ষেত্রে সকল পরীক্ষার্থীদের দেওয়ার কথা, শুধুমাত্র ২৬৯ জন কে কেন দেওয়া হলো। অভিযোগ, এই শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় আর্থিক লেনদেনের বিষয়টি উঠে এসেছে।

Advertisement

প্রথম ধাপে 60 জন শিক্ষককে তলব করার কারণ হিসেবে জানা গিয়েছে, পরে সংখ্যাটা আরো বাড়তে পারে। অভিযোগ, এনাদের কোনোরকম আরটিআই বা ওএমআর শিট বা উত্তর পত্র ছিল না। যে সমস্ত শিক্ষককে ইডির তরফে তলব করা হয়েছে, তারা আর্থিক লেনদেনের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন কি না সেই বিষয়টি খতিয়ে দেখতে চায় ইডি (Enforcement Directorate).

আরও পড়ুন, সিদ্ধান্ত ফাইনাল, ছাঁটাই হতে চলেছেন প্রায় 50 শতাংশ কর্মী!

শুধু তাই নয়, সংখ্যাটা ২৬৯ নাকি তার চেয়ে বেশি, সেই অনুসন্ধান ও করা হচ্ছে। সুত্রের খবর, গতমাসে পুরো প্যানেলের (Primary TET 2014), সমস্ত প্রাথমিক শিক্ষকদের নথি চাওয়া হয়। সেই নথিও যাচাই হচ্ছে। অন্যদিকে প্রাথমিক শিক্ষকদের অভিযোগ, যে সমস্ত শিক্ষকেরা নিজের যোগ্যতায় চাকরী পেয়েছেন, সামাজিক মাধ্যমে তাদের নিয়ে ও ট্রোলিং হচ্ছে। এটা বন্ধ হওয়া দরকার।

Primary TET 2014 বিষয়ে কোনও প্রশ্ন থাকলে নিচে কমেন্ট করে জানাবেন। আপনার মন্তব্য কমেন্ট করেও আলোচনায় অংশগ্রহণ করতে পারেন। পরবর্তী আপডেট আসছে। সঙ্গে থাকুন।
Written by Rajib Ghosh.

আরও পড়ুন, পশ্চিমবঙ্গে নতুন করে শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি, এই মুহুর্তের বড় খবর, বিস্তারিত জানুন।

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment