LPG রান্নার গ্যাস বুকিং এ নিষেধাজ্ঞা, এইমাসে আর গ্যাস পাবেন না, নতুন নিয়ম জেনে নিন।

দরকার থাকলেও আর রান্নার গ্যাস পাবেন না, কড়া নিয়ম কেন্দ্রের।

দেশজুড়ে রান্নার গ্যাসের দাম আকাশছোঁয়া। আর এবার পুজোর মাসে সেই রান্নার গ্যাস বুকিং এ নতুন নিয়ম বেঁধে দিলো সরকার। এমনিতেই গ্যাসের দাম বাড়ায় ফলে নাজেহাল দেশের আমজনতা। মধ্যবিত্ত, নিম্ন মধ্যবিত্ত, গরিব মানুষের দিন গুজরাণ করা কষ্টসাধ্য হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Advertisement

একদিকে বাজারে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের মূল্য বৃদ্ধি অন্যদিকে রান্নার গ্যাসের লাগাতার দাম বৃদ্ধির ফলে মানুষের দৈনন্দিন জীবনযাপন সমস্যাজনক হয়ে গিয়েছে। এই মুহূর্তে এলপিজি সিলিন্ডারের দাম 1 হাজার টাকার উপরে। কলকাতায় LPG Gas সিলিন্ডারের দাম 1079 টাকা, দিল্লিতে 1053 টাকা, মুম্বইয়ে 1052 টাকা এবং চেন্নাইয়ে 1068 টাকা এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডারের দাম।

Advertisement

শুধু তাই নয়, এরপরে মনে করা হচ্ছে গ্যাস সিলিন্ডারের দাম আরো বাড়তে পারে। তার কারণ ডলারের নিরিখে টাকার দাম ক্রমাগত পড়ছে। তার ফলে আগামী দিনে রান্নার গ্যাস সিলিন্ডারের দাম অনেকটাই বেড়ে যেতে পারে। আর এরকম একটা পরিস্থিতির মধ্যেই কেন্দ্রীয় সরকার গ্যাস সিলিন্ডারের বুকিং এর নিয়মের ক্ষেত্রে বড়সড় পরিবর্তন করল LPG Cylinder Booking Rules Change.

মোবাইল রিচার্জের দাম কমাতে বাধ্য হলো, মাত্র 24 টাকায় সারা মাসের ভ্যালিডিটি।

এবার থেকে কোনো গ্রাহক বছরে 15 টির বেশি রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার বুক করতে পারবেন না। মাসের হিসেবে ধরতে গেলে কোন মাসেই 2 টোর বেশি গ্যাস সিলিন্ডার বুক করা যাবে না। আবার তার অর্থ এই নয় যে প্রতিমাসেই 2টি করে গ্যাস সিলিন্ডার বুক করা সম্ভব হবে। সেটাও করা যাবে না। 15 টির বেশি গ্যাস সিলিন্ডার বুক করতে হলে গ্রাহককে বহু ডকুমেন্টস (Documents) জমা দিতে হবে।

নির্দিষ্ট করে জানাতে হবে কি কারনে বেশি পরিমাণে গ্যাস সিলিন্ডারের প্রয়োজন। রেশন কার্ড সহ একাধিক ডকুমেন্টস দিয়ে বেশি সিলিন্ডার নেওয়ার কারণ জানাতে হবে। তারপরে ডিস্ট্রিবিউটর সেই কারণ যাচাই করে দেখার পরেই 15 টির বেশি গ্যাস সিলিন্ডার ওই গ্রাহককে দিতে পারবেন। আর অতিরিক্ত সিলিন্ডারের ক্ষেত্রে কোনও সাবসিডি পাবেন না। বেশি দামে নিতে হবে রান্নার গ্যাস।

Advertisement

যে কোনো গ্যাস কোম্পানির ক্ষেত্রেই এই নিয়ম প্রযোজ্য হবে। IOCL, BPCL, HPCL এবং INDANE যে কোনো গ্যাস কোম্পানির গ্রাহকেদের এই নিয়ম মানতে হবে। কোম্পানির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রকের এই বিষয়ে নির্দেশ দেওয়ার পরেই নিয়ম চালু হয়ে যাবে।

পোষ্ট অফিসে টাকা তুলতে গেলে, এবার থেকে মানতে হবে এই নিয়ম।

তবে এর ফলে যে সমস্ত পরিবারের সদস্য সংখ্যা বেশি তারা যথেষ্ট সমস্যায় পড়বেন বলেই মনে করা হচ্ছে। কেন্দ্রের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, গ্যাস সিলিন্ডার নিয়ে জালিয়াতি বন্ধ করার জন্যই এই পদক্ষেপ। অভিযোগ আছে, ডোমেস্টিক গ্যাস রেস্টুরেন্ট ও অটো চালকদের কাছে বিক্রয় করা হচ্ছে। যার ফলে বাজারে চাহিদা বাড়ছে।

আবারও বাতিল ৫০০ টাকার নোট। সময় বেধে দিলো RBI. কতো দিন? জানুন বিস্তারিত।

এই বিষয়ে আপনার কি মতামত, নিচে কমেন্ট করে জানাবেন। বেআইনি ভাবে বাড়ীর রান্নার গ্যাস দোকানে ও অটো চালকদের বিক্রয় করা কি আইন সঙ্গত? নিচে কমেন্ট করে জানাবেন। অন্যদিকে এই মাসে গ্যাস ডেলিভারি বয় কি পুজোর বোনাস চাইছে? নিচে কমেন্ট করে জানাবেন।
Written by Rajib Ghosh.

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment