Madhyamik HS Exam Tips – পরীক্ষার খাতায় এইভাবে লিখলে প্রতি বিষয়ে ১০ নম্বর বেশী পাবে, Best Tips 1

Madhyamik HS Exam Tips – মেধা সবার এক নাও হতে পারে, কিন্তু এই স্মার্টওয়ার্ক গুলো সহজে ভালো ফল এনে দিতে পারে।

দরজায় কড়া নাড়ছে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা (Madhyamik HS Exam Tips)। কিন্তু অতিমারীর কারনে ঠিক মতো হয়নি ক্লাস, এবং পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা পেছনোর দাবী থাকলেও, সংক্রমনের হার কমায়, নির্ধারিত সুচী মেনেই হবে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা। তাই ক্লাস না হওয়ার কারনে এবং দীর্ঘদিন স্কুল বন্ধ থাকার দরুন একরকম পরীক্ষাভীতি কাজ করতে পারে পরীক্ষার্থীদের মনে। তাই এই ভীতি কাটিয়ে কিভাবে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকে ভালো নম্বর পাওয়া যায়, এই নিয়ে রইলো বিস্তারিত পরামর্শ।

Advertisement

যে সমস্ত শিক্ষকেরা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকের (Madhyamik HS Exam Tips) খাতা দেখেন, তাদের অভিজ্ঞতার নির্জাস এবং পরামর্শ নিয়ে এই প্রতিবেদন রচিত। তাই কিভাবে লিখলে ভালো নম্বর পাবে কয়েকটি পয়েন্ট তুলে ধরা হলো। এই পয়েন্ট গুলো মনে রেখে পরীক্ষার খাতায় লিখলে নিশ্চিত রুপে পরীক্ষার্থী তার সামর্থের চেয়ে অন্তত পাঁচ থেকে দশ নম্বর বেশী পাবে।

Advertisement

কিভাবে পরীক্ষার খাতায় লিখবে (Madhyamik HS Exam Tips)?

১) কোথায় আছে , পেহেলে দর্শনধারী, বাদ মে গুন বিচারী। সুতরাং উত্তরপত্রের প্রথম দুই-তিন পাতার লেখা পরীক্ষকের সাইকোলজিকে বোঝায়, যে তুমি কেমন লিখেছ। আর প্রথম দুই তিনটি প্রশ্ন যদি তুমি ভালো এবং কাটাকুটি না করে, সুন্দর হাতের লেখা দিয়ে লিখতে পারো, তখনই তোমার প্রতি পরীক্ষকের মনে একটি ভালো ইম্প্রেশন তৈরী হয়। তাহলে পরের প্রশ্ন গুলোতেও তুমি ভালো নম্বর পাবে। তাই লেখা শুরুর আগে পুরো প্রশ্ন পড়ে নাও, এবং সবচেয়ে ভালো লিখতে পারবে সেই তিনটি প্রশ্ন বেছে নিয়ে প্রথমে লেখ। তবে দাগ নম্বর ঠিক মতো দেবে। মনে রাখবে তোমার হাতের লেখা সুন্দর না ও হতে পারে, কিন্তু তুমি চেষ্টা করলেই পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করে লিখতে পারো, কাটাকুটি না করে লিখতে পারো। (Madhyamik HS Exam Tips)

২) দ্বিতীয় বিষয় টি হচ্ছে প্রশ্ন নির্বাচন। অনেকেই মনে করে যে ভাগ ভাগ করা প্রশ্ন, যেমন (১+২+১) এই প্রশ্ন গুলো লিখলে ভালো নম্বর পাওয়া যায়। একথা সত্যিই ঠিক, কিন্তু এই প্রশ্নের তিনটি পার্টই যদি তোমার জানা থাকে তবেই লিখবে। আর যদি সবগুলো পার্টের উত্তর না জেনে থাকো তবে এর চেয়ে বর্ণনামূলক প্রশ্ন উত্তর করলে, আর সেই প্রশ্নের উত্তর যদি তোমার ভালো জানা থাকে তবে এই ক্ষেত্রে বর্ণনামূলক প্রশ্নই উত্তর করা ভালো। Madhyamik HS Exam Tips

৩) আর আরেকটি কথা, যদিও পরীক্ষার (Madhyamik HS Exam Tips) আগে কথাটি বলা ঠিক নয়, তবুও তোমাদের ভালোর জন্যই বলছি, কখনো তোমার সামনে যে বসবে তার খাতা দেখে লিখবে না। কারন তার খাতা আর তোমার খাতা এক হলে, পরীক্ষকের সেটা বুঝতে অসুবিধা হবে না, সেক্ষেত্রে পরের খাতাটি যার, সে অপেক্ষাকৃত কম নম্বর পাবে। ঠিক একই ভাবে তুমি যদি তোমার সামনের জন কে উত্তর দেখাও, তবে তুমি কম নম্বর পাবে।

Advertisement

৪) পরীক্ষার (Madhyamik HS Exam Tips) হলে গিয়ে তোমার সর্বপ্রথম টার্গেট থাকবে পূর্ণমানের বা ফুলমার্কস এর উত্তর করা। আর সমস্ত প্রশ্ন কমন না ও পড়তে পারে। সেক্ষেত্রে যে প্রশ্নের উত্তর গুলো তুমি ভালো জানো, সেগুলো আগে উত্তর করবে। এবং মার্ক করে রাখবে। যে প্রশ্ন গুলো তোমার কমন পড়েনি, তার সম্মন্ধে যতটুকু জানো দুই তিন লাইন হলেও প্রত্যেক্টি প্রশ্নের উত্তর লিখে আসবে। আর একটুও ধারনা না থাকলে, ঐ মুহূর্তে যতটুকু মনে হয় দুই তিন লাইন লিখে আসবে।

৫) পরীক্ষার হলে গিয়ে প্রথম এক ঘন্টা তোমার মন এবং ব্রেন রিলাক্সে থাকবে, তাই প্রথম এক ঘন্টায় তুমি তোমার সবচেয়ে কমন পড়া প্রশ্ন গুলোই লিখবে। মনে রাখবে এমন কোনও নিয়ম নেই যে প্রশ্নের সিরিয়াল অনুযায়ী উত্তর করতে হবে। দাগ নম্বর ঠিক থাকলেই হলো। Madhyamik HS Exam Tips

Click Here, মাধ্যমিক সাজেশন ১

৬) যে প্রশ্নগুলো কমন পড়েনি, সেগুলো নিয়ে পরে চিন্তা করবে। যখন সব লেখা হয়ে যাবে তখন একেকটি প্রশ্নের উত্তর করবে, নিজের অভিজ্ঞতা এবং কৌশল দিয়ে। আর একটি কাজ কখনো করবে না, যেটি অনেকেই নিজের পারসোনাল বক্তব্য লিখে আসে, ( স্যার পাস করিয়ে দেবেন, আমার বিয়ে হবে না, বাড়ি থেকে বের করে দেবে) এগুলো লিখলে খাতা বাতিল হয়ে যেতে পারে। আর ফোন নম্বর তো ভুলেও লিখবেনা। Madhyamik HS Exam Tips

৭) সমস্ত প্রশ্ন লেখা হয়ে গেলে প্রথমে প্রত্যেক্টি প্রশ্নের দাগ নম্বর চেক করবে। এরপর পুরো উত্তর পত্রের বানান চেক করবে। গনিত বিষয়ক উত্তরের উত্তর ঠিক আছে কিনা, আবার চেক করবে। আর ড্রয়িং গুলো যতটা পারো পরিস্কার এবং তথ্যমুলক করার চেষ্টা করবে। পেন্সিল সরু করে ব্যাবহার করবে। ভালো মানের ইরেজার ব্যাবহার করবে। Madhyamik HS Exam Tips

ক্লিক করুন, মাধ্যমিক সাজেশন ২

সর্বোপরি একটি ভালো প্রস্তুতি স্বভাবতই ভালো ফলের দাবিদার। সেই সাথে হার্ড ওয়ার্ক এর চেয়ে বর্তমানে স্মার্টওয়ার্ক বেশী ফলদায়ক। তাই কিছুটা টেকনিক ব্যাবহার করে, সাধারন মেধার পড়ুয়া ও ভালো ফল করতে পারে। প্রতিবেদনটি ভালো লাগলে বন্ধুদের অবশ্যই শেয়ার করার অনুরোধ রইলো, এবং এই সম্পর্কে কোনও প্রশ্ন, বা পরীক্ষার সাজেশন পেতে নিচে কমেন্ট করো। সেই সাথে পরীক্ষা (Madhyamik HS Exam Tips) পেছনো নিয়ে তোমার কি মতামত, নিচে কমেন্ট করে জানাতে পারো।

ক্লিক করুন, উচ্চ মাধ্যমিক সাজেশন

এই প্রোমো কোড দিয়ে রিচার্জ করলে, ৩০ টাকা ক্যাসব্যাক

শেয়ার করুন: Sharing is Caring!

Leave a Comment